আজিজ সুপার মার্কেট, শাহবাগ, ঢাকা, বাংলাদেশ
০১৮৫৭৭৭৭৪৮৪

ঢাকার প্রাচীন নিদর্শন

Subscribers pack
SKU : 23727250

Quantity

Email to friend

রাজধানী হিসাবে ঢাকা সম্পর্কে কৌতূহল এখন আন্তর্জাতিক পর্যায়ে। দিন দিন ঢাকার যে বিস্তৃতি ও কর্মকাণ্ড বৃদ্ধি পাচ্ছে তার ফলে এই কৌতূহল আরো বাড়ছে। এই কৌতূহল মেটানোর ক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞদের দায়িত্ব এখন অনেকটাই বেড়েছে। এই দায়িত্ব ইতিহাসবিদরাও যেমন পালন করছেন তেমনি করছেন নগর বিশারদ, শিল্পী ও সাহিত্যিগণও।

ঢাকার ইতিহাসের সবচেয়ে সঙ্কটময় সময় ছিল উনিশ শতকের প্রথমার্ধ। মুগল আমলের সুখ ও সমৃদ্ধি হঠাৎ করেই উধাও হয়ে যায় এদেশে ইংরেজ শাসন প্রতিষ্ঠার পরপরই। এককালের প্রাচ্যের অন্যতম সুন্দর ও সমৃদ্ধশালী নগরটি ধ্বংসের সম্মুখীন হয়ে পড়ে। এ সবই হয় ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির রাজনৈতিক, প্রশাসনিক ও অর্থনৈতিক নীতিমালার প্রেক্ষিতে। ঢাকার অস্তিত্বই হয়ে উঠে বিপন্ন।

১৮২৪ সালে ইংরেজ ধর্মযাজক বিশপ হেবার ঢাকা পরিদর্শনে এসে শহরটিকে যেভাবে দেখতে পান তার বর্ণনা দিয়েছেন এভাবে—

ঢাকা বর্তমানে এর প্রাচীন বিশালতার এক ধ্বংস্তূপ মাত্র। নগরটির ব্যবসা-বাণিজ্য অতীতের ষোল ভাগের এক ভাগে এসে দাঁড়িয়েছে… এবং এর অপূর্ব সুন্দর অট্টালিকাগুলি; এই নগরের প্রতিষ্ঠার দুর্গটি… তাঁর নির্মিত চমৎকার মসজিদটি, বিগত নবাবদের প্রাসাদগুলি, ওলন্দাজ ফরাসি এবং পর্তুগিজদের কারখানা ও গীর্জা সবই ধ্বংসের মুখে পতিত হয়েছে আর বনজঙ্গলে ঢেকে গেছে।

প্রায় নিশ্চিহ্ন হয়ে যেতে যেতেও যে হয়নি তার প্রধান কারণগুলি ছিল শহরটির ভৌগলিক অবস্থান, এর সমৃদ্ধ পশ্চাদভূমি এবং শহরটির আপন ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি। ইদানীংকালে ইতিহাসবিদরা ঢাকার ইতিহাসের এই সঙ্কটকালের কাহিনী এবং ঢাকার পুনরুজ্জীবনবাদের কথা বিস্তৃতভাবে বর্ণনা করেছেন। কিন্তু যে ব্যক্তিটি এই ক্রান্তিকালের ঢাকার জীবন ও অবস্থানকে নিখুঁতভাবে এঁকে রেখেছেন পরবর্তী প্রজন্মের জন্য তিনি হলেন সমকালীন ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির একজন কর্মকর্তা এবং ঢাকার কালেক্টর স্যর চার্লস ড’য়লী। দীর্ঘদিন ধরে কর্মকালীন থাকা অবস্থায় ঢাকার জীবনকে উপলব্ধি করে তিনি তার অপূর্ব শিল্পকর্মের মাধ্যমে ঢাকাকে জীবন্ত করে রেখেছেন। তিনি তার তুলির মাধ্যমে ঢাকাকে যেভাবে ধরে রেখেছেন তা হয়ত কোন ইতিহাসবিদ বা লেখকের পক্ষে সম্ভব হত না।

স্যর চার্লস ড’য়লী শুধু যে ঢাকার জীবনকে তার তুলির মাধ্যমে অমর করে রেখেছেন তাই নয় তিনি উনিশ শতকে ঢাকায় চারুকলার এক নতুন দিগন্ত সূচনা করেন। এরই ধারাবাহিকতায় ঢাকার আধুনিক চিত্রশিল্পের আবির্ভাব ঘটে।

ড’য়লীর চিত্রগুলি পরবর্তীতে প্রকাশ করা হয় যা সারা বিশ্বে নন্দিত হয়। উপমহাদেশের জন্য এই চিত্রগুলির গুরুত্ব খুব বেশি কেননা এগুলি ইতিহাসকে বাস্তবরূপে ধরে রেখেছে।

ঢাকাবাসী তথা বাংলাদেশীদের জন্য এই চিত্রগুলি আরো প্রয়োজনীয় তাদের অতীতকে জানার জন্য। ১৯৯১ সালে একাডমিক পাবলিশার্স চিত্রগুলি সংবলিত ড’য়লীর জীবন ও শিল্পকর্ম নিয়ে ঢাকার প্রাচীন নিদর্শন নামে একখানি গুরুত্বপূর্ণ গ্রন্থ প্রকাশ করেছিল। বইটি প্রকাশিত হলে তা সুধীজনের মধ্যে দারুণভাবে সমাদৃত হয়। অল্প কিছুদিনের মধ্যই প্রকাশিত গ্রন্থটির সবগুলি কপি বিক্রি হয়ে যায়। কিন্তু এর চাহিদা বিশেষ করে নতুন প্রজন্মের কাছে থেকে যায়।

আমি অত্যন্ত আনন্দিত যে একাডেমিক প্রেস এণ্ড পাবলিশার্স লাইব্রেরী (APPL) এই নতুন চাহিদা মেটানোর জন্য বইটি পুনর্মুদ্রণ করছেন। এই পুনর্মুদ্রণ কিছুটা নতুন আঙ্গিকে ও কলেবরে করা হয়েছে। বইটি আগের মতই ঢাকার ইতিহাসে আগ্রহী পাঠক ও সার্বজনীনভাবে নন্দিত হোক এই কামনা করি।

ড. শরীফ উদ্দিন আহমেদ

  
Book Author স্যর চার্লস ড’য়লী
Translator শাহ্ মুহম্মদ নাজমুল আলম
Editor হায়াৎ মামুদ
Publisher একাডেমিক প্রেস এন্ড পাবলিশার্স লাইব্রেরী
Cover Designer গোলাম সারওয়ার
Language বাংলা
First Edition মে ১৯৯১
Book Size ৭.৫" x ৯.৭৫"
No. of pages ১১৭
Price: Hardbound ৪৫০.০০
ISBN 984 08 0190 6
Available Yes
Dimension (L x W x H) 0 x 0 x 0
Weight 0