লুই আই. কান

বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ ভবনের ডিজাইন যাঁর করা, সেই স্থপতির নাম লুই আই. কান।
স্থাপত্যের ইতিহাসে লুই আই. কানের নাম নানা কারণে স্মরণীয় হয়ে আছে। যত দিন যাচ্ছে, স্থপতি হিসাবে তাঁর কাজ এবং স্থাপত্য নিয়ে তাঁর ভাবনাচিন্তার মূল্য, দিন দিন, বেড়েই চলেছে। কত মহৎ এক শিল্পীকে আমাদের সংসদ ভবনের স্থপতি হিসাবে আমরা পেয়েছি, সে সম্পর্কে আমাদের অনেকেরই ধারণা নেই। বাংলাদেশের জাতীয় সংসদ ভবন সেই শিল্পীর জীবনের সেরা কাজগুলোর অন্যতম।
লুই কান ছিলেন একজন দ্রষ্টা-স্থপতি—ইংরেজিতে যাঁদের বলে ‘ভিশনারী আর্কিটেক্ট’। ছিলেন সত্যিকার একজন দার্শনিকও। বাংলা ভাষায় এটাই লুই কানের প্রথম পূর্ণাঙ্গ জীবনী। তাঁর বেড়ে ওঠার এবং হয়ে ওঠার অনুপুঙ্খ ধারাবাহিক বর্ণনা রয়েছে এ বইয়ের পাতায় পাতায়। সেই সঙ্গে রয়েছে—স্থাপত্য বিষয়ে তাঁর ধ্যানধারণার ক্রমবিবর্তনের বস্তুনিষ্ঠ বর্ণনা ও বিশ্লেষণ; তাঁর উল্লেখযোগ্য সব স্থাপত্যকাজের সচিত্র বর্ণনা; বাংলাদেশের জাতীয় সংসদ ভবনটির গড়ে উঠবার কাহিনি; সংসদ ভবনের ডিজাইন, ডিজাইনের পিছনের চিন্তা ও দর্শন, আর সেই দর্শনের রূপায়ণের ধারাবাহিক বর্ণনা। সেইসঙ্গে এই গ্রন্থে রয়েছে, লুই কানের নিজস্ব রচনা, বক্তৃতা-বিবৃতি, কথপোকথনের উল্লেখযোগ্য অংশের বাংলা অনুবাদ।